দূর্ভেদ্য দৃষ্টি

বিজয় বাংলা
প্রকাশিত ১৬, মে, ২০২৩, মঙ্গলবার
<strong>দূর্ভেদ্য দৃষ্টি</strong>

আইরিন আলম

আমি চন্দ্র, আমি জ্যোৎস্না,

আমি অস্ফুট চোখে দেখা সপ্না।

 

আমি কুহেলী, আমি তপ্ত রোদের ধোয়া,

আমার তীক্ষ্ন কথায় থাকে দূর্ভেদ্যতার ছোঁয়া ।

আমি তপ্ত দুপুর কিংবা নিশি,

ভেঙে আসেছি সব নৈশভোজের প্রীতি ।

 

 

আমি চঞ্চল কিংবা গহীন,

চলাফেরায় আছে এক অদ্ভুত সমীচীন।

 

 

ভাবলেশহীন যাই দেখো আর আমি

তোমাদেরই করা ধ্বংসাবশেষ।

 

 

দৃষ্টির গভীরতা ছুঁয়েই

আজ তেপান্তর লুকানো পথদ্রষ্টাই অবশেষ।

আমার চোক্ষে তিমির ঘোর, ছুঁতে আসো!

দেখেনিও শিখায় কত জোড় ।

 

 

চঞ্চলা চোখ অমানিশার ঘোর,

ছুটে চলে বহুদূর।

 

 

এমনিতেই কত পথ,

পড়ে আছে দূরে রথ ।

এতেই কি ছোঁয়া যায়।

তাই তো দৃষ্টির এতো তেজ।

 

 

বিজয় বাংলা/এইচ কে/১৬/০৫/২০২৩ইং

শেয়ার করে ছড়িয়ে দিন
  • 47
    Shares